Friday, November 24

কানাইঘাটে দুই সহোদরের বিরুদ্ধে টাকা আত্মসাতের মামলা


নিজস্ব প্রতিবেদক: সিলেট শহরের জেল রোড বন্দর বাজারের মেসার্স বিল্ডার্স ইলেক্ট্রনিক্স থেকে পণ্য সামগ্রী বাকিতে কিনে ৯লক্ষ ১২হাজার টাকা আত্মসাতের ঘটনায় কানাইঘাটের দুই ইলেক্ট্রনিক্স ব্যবসায়ী সহ ৩ জনের বিরুদ্ধে সিলেটের চিফ জুডিসিয়াল ম্যাজিষ্ট্রেট ও আমলী আদালত কানাইঘাটে দরখাস্ত মামলা দায়ের করেছেন বিল্ডার্স ইলেক্ট্রনিক্স এর সত্ত্বাধিকারী কাজী শিহাব উদ্দিন। গত ৩০/১০/২০১৭ইং তারিখ তিনি বাদী হয়ে আদালতে কানাইঘাট লক্ষীপ্রসাদ পূর্ব ইউপির উজান বারাপৈত গ্রামের মৃত আব্দুল হান্নানের পুত্র কানাইঘাট বাজারস্থ মেসার্স নুসরাত ইলেক্ট্রনিক্স ও সিলেট বন্দর বাজারের মেসার্স ফয়ছল ইলেক্ট্রনিক্স এর সত্ত্বাধিকারী ফয়ছল আহমদ ও তার ভাই কানাইঘাট বাজারের মেসার্স আরাফাত ইলেক্ট্রনিক্স এর সত্তাধিকারী কামরুল ইসলাম ও ফয়ছল আহমদের স্ত্রী চামেলী বেগমকে আসামী করে দরখাস্ত মামলা দায়ের করলে বিজ্ঞ আদালত বিষয়টি আমলে নিয়ে তদন্তের জন্য পুলিশের অধিকতর তদন্ত সংস্থা পিবিআই সিলেটকে নির্দেশ দিয়েছেন। অভিযোগে বাদী কাজী শিহাব উদ্দিন উল্লেখ করেছেন ব্যবসায়িক সূত্র ধরে বিভিন্ন সময়ে বিবাদীগণ তার মালিকানাধীন বিল্ডার্স ইলেক্ট্রনিক্স থেকে বিবাদীগণ ইলেক্ট্রনিক্স পণ্যসামগ্রী নগদ ও বাকিতে কিনে একপর্যায়ে পণ্যসামগ্রী বাবদ পাওনা নগদ ৯ লক্ষ ১২ হাজার টাকা নিয়ে বিবাদী ফয়ছল আহমদ ও তার ভাই কামরুল ইসলাম ও চামেলী বেগম পরস্পরের অন্যায় সহযোগিতায় বিশ্বাস ভঙ্গ ও প্রতারণা করে টাকা আত্মসাতের ঘটনায় এ মামলা দায়ের করেছেন। এদিকে মামলার ২নং আসামী কানাইঘাট বাজারের আরাফাত ইলেক্টনিক্স এর মালিক কামরুল ইসলাম জানিয়েছেন তার ছোট ভাই ফয়ছল আহমদের কাছে বিল্ডার্স ইলেক্ট্রনিক্স এর মালিক শিহাব উদ্দিন টাকা পাবেন। তাকে কেন আসামী করা হয়েছে তিনি জানেন না। ফয়ছল আহমদের সাথে পরিবারের কোন সদস্যের যোগাযোগ নেই। সে কোথায় আছে তিনি জানেন না।

শেয়ার করুন

0 comments:

পাঠকের মতামতের জন্য কানাইঘাট নিউজ কর্তৃপক্ষ দায়ী নয়

নোটিশ :   কানাইঘাট নিউজ ডটকমে প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, আলোকচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও বিনা অনুমতিতে ব্যবহার করা বেআইনি -সম্পাদক