Previous
Next

সর্বশেষ


Wednesday, May 22

এসএসসি-দাখিল পরীক্ষায় উত্তীর্ণদের সংবর্ধনা দিচ্ছে সার্ক ইন্টারন্যাশনাল কলেজ বাংলাদেশ

এসএসসি-দাখিল পরীক্ষায় উত্তীর্ণদের সংবর্ধনা দিচ্ছে সার্ক ইন্টারন্যাশনাল কলেজ বাংলাদেশ


এসএসসি-দাখিল পরীক্ষায় উত্তীর্ণদের সংবর্ধনা দিচ্ছে সার্ক ইন্টারন্যাশনাল কলেজ বাংলাদেশ


২০২৪ সালে এসএসসি-দাখিল পরীক্ষায় উত্তীর্ণ A ও A+ প্রাপ্তদের সংবর্ধনা দিতে যাচ্ছে সিলেট মহানগরীর
সার্ক ইন্টারন্যাশনাল কলেজ বাংলাদেশ।
আগামী ২৩ মে বিশাল কৃতী শিক্ষার্থী সংবর্ধনার জন্য ব্যাপক প্রস্তুতি নিচ্ছে এ প্রতিষ্ঠান। লেখাপড়া ও ভালো ফলাফলের পাশাপাশি শিক্ষার্থীদের উৎসাহী করতে ব্যতিক্রমী নানা রকমের আয়োজন করে থাকে এ প্রতিষ্ঠান। এটি হচ্ছে ত্রয়োদশ কৃতী শিক্ষার্থী সংবর্ধনা ।
এতে রেজিস্ট্রেশন সম্পন্ন করে অংশগ্রহণ করার জন্য শিক্ষার্থী ও অভিভাবকদের প্রতি অনুরোধ করা হয়েছে।
রেজিস্ট্রেশন করতে নিচের লিংকে ক্লিক করুন।

ভর্তি সংক্রান্ত:

সার্ক ইন্টারন্যাশনাল কলেজ বাংলাদেশ’ -এ
২০২৪-২৫ শিক্ষাবর্ষে একাদশ শ্রেণিতে অনলাইনে ও
সরাসরি ভর্তি চলছে ।
কলেজ কোড ১০০৬
EIIN : 134655
কলেজ ক্যাম্পাসে সার্ভিস চার্জ ছাড়া অনলাইনে আবেদন করতে পারবেন ৷
ভর্তির তথ্যের জন্য : 0 1 7 4 2 – 7 8 7 4 7 3
ভর্তির জন্য নিচের লিংকে ক্লিক করুন

প্রতিষ্ঠানের ঠিকানা: পূর্ব মিরাবাজার (দর্জিপাড়া ) সিলেট।
www.facebook.com/sicbd
web:sicb.edu.bd

কানাইঘাটে সাংবাদিকদের সাথে মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান প্রার্থী রোকশানার মতিবিনিময়

কানাইঘাটে সাংবাদিকদের সাথে মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান প্রার্থী রোকশানার মতিবিনিময়


নিজস্ব প্রতিবেদক:

গামী ৫ জুনের ৬ষ্ঠ উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে কানাইঘাটে মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান প্রার্থী রোকশানা জাহান (পদ্মফুল) প্রতীকে ভোট চেয়ে সাংবাদিকদের সাথে মতবিনিময় করেছেন।


বুধবার বিকেল ৩টায় কানাইঘাট প্রেসক্লাব কার্যালয়ে মতবিনিময়কালে ভাইস চেয়ারম্যান প্রার্থী রোকশানা জাহান বলেন, দলমত নির্বিশেষে সকলের সমর্থন নিয়ে আগামী ৫ জুনের নির্বাচনে (পদ্মফুল) প্রতীক নিয়ে নির্বাচনে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছি। প্রচার-প্রচারনায় উপজেলার যেখানে যাচ্ছি, নারী-পুরুষ সহ সর্বস্তরের ভোটারদের সমর্থন পাচ্ছি। দীর্ঘদিন থেকে কানাইঘাটের ধর্মপ্রাণ জনসাধারণ, মা-বোন সহ অন্যান্য ধর্মের ভাই-বোনদের সাধ্যানুযায়ী তাদের পাশে থেকে বিভিন্ন ভাবে সেবা করার চেষ্টা করে আসছি। বিশেষ করে নারী-নির্যাতন, নিপীড়ন ও পিছিয়ে পড়া নারীরা যাতে করে সম্মানের সহিত জীবন-জীবিকা নির্বাহ করতে পারেন এজন্য তাদের সাহায্য সহযোগিতা করে যাচ্ছি।


তাই দলমত নির্বিশেষে সবাই আমাকে এবারের উপজেলা পরিষদের নির্বাচনে মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান প্রার্থী হিসেবে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করার জন্য উৎসাহ-উদ্দীপনা দিয়ে আসছিলেন। সবার মতামতকে সম্মান জানিয়ে কানাইঘাটবাসীর সেবা করার জন্য আমি মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান পদে নির্বাচনে প্রতিদ্ব›িদ্বতা করছি।


আগামী ৫ জুনের নির্বাচনে তিনি মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান পদে নির্বাচিত হলে, সব-সময় সততা, নিষ্ঠার সাথে আমার উপর অর্পিত দায়িত্ব পালন করব এবং জনগণের পাশে থেকে সেবা করার আপ্রান চেস্টা করে যাবো। সেই সাথে সরকার ও উপজেলা পরিষদ থেকে প্রাপ্ত বরাদ্দটুকু সততার মাধ্যমে ইনসাফ ভিত্তিক সুষ্ঠু বণ্টন সহ উন্নয়ন মূলক কর্মকান্ড পরিচালনা করব। আমি একজন নারী হিসেবে, নারীদের বিভিন্ন ধরনের সমস্যা সমাধানে কাজ করব এবং সরকারের নারী সমাজের উন্নয়নের জন্য যেসব সুযোগ-সুবিধা নিশ্চিত করেছেন তা বাস্তবায়নে কাজ করে যাব।


সরকার জনগণের সেবা নিশ্চিত করার জন্য উপজেলা পরিষদের বিভিন্ন দপ্তর থেকে নারী-পুরুষ সহ সবাইকে নানা ধরনের সেবার পাশাপাশি বিভিন্ন ধরনের ভাতা প্রদান করা হয়। এসব ভাতা ও সুযোগ-সুবিধা যাতে করে উপযুক্তরা পান সেদিকে আমার বিশেষ নজর থাকবে।


উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান, প্রশাসনের কর্মকর্তা, জনপ্রতিনিধি দলমত নির্বিশেষে সবাইকে সাথে নিয়ে জবাবদিহিতা নিশ্চিতের মাধ্যমে উন্নয়ন মূলক কর্মকান্ড সহ সব ধরনের প্রাপ্ত বরাদ্দ সুষ্ঠুভাবে বন্টন করব। কোন বরাদ্দ অর্থের বিনিময়ে বিক্রি করবেন না বলে মতবিনিময় সভায় মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান প্রার্থী রোকশানা জাহান উল্লেখ করেন।


মতবিনিময় সভায় তিনি কানাইঘাটবাসীর কাছে ৫ জুনের নির্বাচনে (পদ্মফুল) প্রতীকে ভোট দিয়ে তাকে বিজয়ী করার জন্য সবার প্রতি আহŸান জানিয়েছেন ।


মতবিনিময় সভায় ভাইস চেয়ারম্যান প্রার্থী রোকশানা জাহানের স্বামী প্রবাসী আব্দুল মালিক, এলাকার মুরব্বী আব্দুল হাসিম, আজির উদ্দিন, রানা দেবনাথ, আব্দুল মুতলিব, ব্যবসায়ী রায়হান উদ্দিন, আশরাফ উদ্দিন সহ প্রেসক্লাব নেতৃবৃন্দ, কর্মরত সাংবাদিকবৃন্দ সহ আরো অনেকে উপস্থিত ছিলেন।

দাতা ও আজীবন সদস্যদের সনদ প্রদান করেছে কানাইঘাট প্রেসক্লাব

দাতা ও আজীবন সদস্যদের সনদ প্রদান করেছে কানাইঘাট প্রেসক্লাব


নিজস্ব প্রতিবেদক: 

তিহ্যবাহী কানাইঘাট প্রেসক্লাবের দাতা ও আজীবন সদস্যদের সনদ প্রদান উপলক্ষ্যে বুধবার (২২ মে) বিকেল ৪টায় ক্লাব কার্যালয়ে এক অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়। ক্লাব সভাপতি নিজাম উদ্দিনের সভাপতিত্বে ও সাধারণ সম্পাদক মাহবুবুর রশিদের সঞ্চালনায় সনদ প্রদান অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন, কানাইঘাট উপজেলা দুর্নীতি প্রতিরোধ কমিটির সভাপতি কলামিষ্ট মাস্টার মহি উদ্দিন।

বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন প্রেসক্লাবের সাবেক সভাপতি রোটারিয়ান শাহজাহান সেলিম বুলবুল, প্রেসক্লাবের দাতা সদস্য ইমেজ ফাউন্ডেশনের চেয়ারম্যান বেলাল আহমেদ এমবিএ, আজীবন সদস্য যুক্তরাষ্ট্র প্রবাসী কমিউনিটি নেতা মুহিবুর রহমান মনির, কানাইঘাট উপজেলা রোডের বিশিষ্ট ব্যবসায়ী শাহিন আহমদ, বড়চতুল হাইস্কুলের সহকারী প্রধান শিক্ষক ইসলাম উদ্দিন।

সনদ প্রদান অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে মাষ্টার মহি উদ্দিন বলেন, ‘কানাইঘাটের আর্থ-সামাজিক উন্নয়নে স্থানীয় কর্মরত সাংবাদিক ও প্রেসক্লাব নেতৃবৃন্দ তাদের লেখনীর মাধ্যমে বড় ধরনের ভূমিকা রেখে আসছেন। কানাইঘাট প্রেসক্লাব একটি ঐতিহ্যবাহী সর্বজনীন প্রতিষ্ঠান। সকলের সহযোগিতায় প্রেসক্লাবের নতুন ভবন নির্মাণ চলমান রয়েছে।’

প্রেসক্লাবের সার্বিক উন্নয়নে দাতা ও আজীবন সদস্যদের এগিয়ে আসার আহ্বান জানান তিনি।

নতুন দাতা ও আজীবন সদস্যরা তাদের বক্তব্যে বলেন প্রেসক্লাব পরিবারের সদস্য হতে পেরে তারা অত্যন্ত আনন্দিত। কানাইঘাটের সাংবাদিকরা সব-সময় এলাকার মানুষের সুখ, দুঃখ, সমস্যা ও সম্ভাবনার কথা গণমাধ্যমে তুলে ধরে আসছেন। সাংবাদিকদের লেখনীর মাধ্যমে কানাইঘাটের মানুষের অনেক প্রত্যাশা পূরণ হয়েছে। প্রেসক্লাবের উন্নয়নে সব-সময় তাদের সহযোগিতা অব্যাহত থাকবে।

অনুষ্ঠানে উপস্থিত দাতা ও আজীবন সদস্যদের মধ্যে প্রেসক্লাবের পক্ষ থেকে সনদ ও সম্মননা স্মারক প্রদান করা হয়। এছাড়াও অনুষ্ঠানে উপস্থিত হতে না পারায় প্রেসক্লাবের আজীবন সদস্য সিলেট ল কলেজের সাবেক ভিপি মাহবুবুল হক চৌধুরী, যুক্তরাজ্য প্রবাসী কমিউনিটি নেতা রফিকুল হক ফাউন্ডেশনের চেয়ারম্যান রনি সারোয়ার চৌধুরী, দক্ষিণ কোরিয়া প্রবাসী সংবাদকর্মী আব্দুল্লাহ আল মাহবুব এর প্রতিনিধির হাতে সনদ ও সম্মাননা স্মারক তুলে দেয়া হয়।

বক্তব্য রাখেন প্রেসক্লাবের সহ সভাপতি আব্দুন নুর, কোষাধ‌্যক্ষ আমিনুল ইসলাম, তথ্য ও প্রযুক্তি বিষয়ক সম্পাদক জয়নাল আবেদীন। অনুষ্ঠানের শুরুতে পবিত্র কোরআন তেলাওয়াত করেন প্রেসক্লাবের সাহিত্য ও প্রকাশনা সম্পাদক মাও. আসআদ আহমদ। এ সময় উপস্থিত ছিলেন ক্লাবের সহ-সাধারণ সম্পাদক মুমিন রশিদ, দপ্তর সম্পাদক সুজন চন্দ অনুপ, ক্রীড়া ও সাংস্কৃতিক সম্পাদক মাহফুজ সিদ্দিকী, সদস্য হাফিজ আহমদ সুজন, মুফিজুর রহমান নাহিদ, সংবাদকর্মী মুফিজুর রহমান। 


Monday, May 20

কানাইঘাট উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে কে কোন প্রতীক পেলেন

কানাইঘাট উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে কে কোন প্রতীক পেলেন


নিজস্ব প্রতিবেদক ::

সন্ন ষষ্ঠ উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে সিলেটের কানাইঘাট উপজেলায় ৪র্থ ধাপে প্রতীক বরাদ্দ দিয়েছেন রিটার্নিং কর্মকর্তা।

সোমবার (২০ মে) রিটার্নিং কর্মকর্তা ও সিনিয়র জেলা নির্বাচন অফিসার কানাইঘাট উপজেলার চেয়ারম্যান পদে ৭ জন, ভাইস চেয়ারম্যান পদে ২জন এবং মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান পদে ১জন প্রার্থীর মধ্যে প্রতীক বরাদ্দ দেন।

এরমধ্যে মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান প্রার্থী বর্তমান ভাইস চেয়ারম্যান খাদিজা বেগম, পুরুষ ভাইস চেয়ারম্যান প্রার্থী জসীম উদ্দিন ও  হাফিজ মাওলানা আলতাফ হোসেনের ভুলবশত হলফনামায় মামলার তথ্য উল্লেখ না করার কারণে তাদের মনোনয়নপত্র বাতিল করা হয়েছে। এ ব্যাপারে তারা প্রার্থিতা ফিরে পেতে উচ্চ আদালতের শরণাপন্ন হয়েছেন।

চেয়ারম্যান পদে কেন্দ্রীয় আওয়ামী লীগের শিল্প ও বাণিজ্য বিষয়ক উপ-কমিটির সদস্য  শামসুজ্জামান বাহার( ঘোড়া) সিলেট জেলা পরিষদ সদস্য ও জেলা আওয়ামী লীগের বন ও পরিবেশ বিষয়ক সম্পাদক মস্তাক আহমদ পলাশ( মোটরসাইকেল),প্রধানমন্ত্রীর সাবেক রাজনৈতিক সচিব (প্রতিমন্ত্রী) আবুল হারিছ চৌধুরীর চাচাতো ভাই আবুল মনসুর চৌধুরী(হেলিকপ্টার), ঢাকার বিশিষ্ট ব্যবসায়ী বেলাল আহমদ(দোয়াত কলম),সাবেক ছাত্রনেতা খায়ের উদ্দিন চৌধুরী( টেলিফোন) খায়রুল আমিন(আনারস) ও এনামুল হক (কাপ পিরিছ) প্রতীক পেয়েছেন। 

ভাইস চেয়ারম্যান পদে খেলাফত মজলিশ নেতা মাওলানা খালেদ আহমদ(চশমা)  ও সাবেক কাউন্সিলর মো. ফখর উদ্দিন শামীম(টিউবওয়েল) প্রতীক পেয়েছেন। 

মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান পদে উপজেলা আওয়ামী লীগের মহিলা বিষয়ক সম্পাদক রোকশানা জাহান (পদ্মফুল)  প্রতীক পেয়েছেন। 

এদিকে প্রতীক বরাদ্দের পরপরই প্রার্থীরা প্রতীক সম্বলিত লিফলেট বিতরণ করে নির্বাচনী প্রচারণায় নেমে পড়েছেন।

উল্লেখ্য, ৪র্থ ধাপে আগামী ৫ জুন কানাইঘাট উপজেলা পরিষদ নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে। এ উপজেলায় মোট ভোটার সংখ্যা দুই লাখ ১৮ হাজার ৯শ’ ১৩ জন।

Sunday, May 19

চতুলবাসীর ভালোবাসার প্রতিদান দিতে চাই: চেয়ারম্যান প্রার্থী শামসুজ্জামান বাহার

চতুলবাসীর ভালোবাসার প্রতিদান দিতে চাই: চেয়ারম্যান প্রার্থী শামসুজ্জামান বাহার


নিজস্ব প্রতিবেদক :

সন্ন কানাইঘাট উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে চেয়ারম্যান পদপ্রার্থী যুক্তরাজ্য প্রবাসী কমিউনিটি নেতা কানাইঘাট উপজেলা পরিষদের প্রথম নির্বাচিত চেয়ারম্যান প্রয়াত এম.এ রকিবের সুযোগ্য সন্তান এ কে এম শামসুজ্জামান বাহার পুরোদমে নির্বাচনী প্রচার-প্রচারণা, মতবিনিময়, সভা-সমাবেশ চালিয়ে যাচ্ছেন।

গত শনিবার দিনব্যাপী চেয়ারম্যান প্রার্থী কেন্দ্রীয় আওয়ামী লীগের শিল্প ও বাণিজ্য বিষয়ক উপ কমিটির সদস্য শামসুজ্জামান বাহার উপজেলার ৫নং বড়চতুল ইউনিয়নের একাধিক নির্বাচনী মতবিনিময় সভায় বক্তব্য রাখেন। প্রথমে তিনি লখাইরগ্রাম, পরে বড়চতুল গ্রামের জামে মসজিদ মিলনায়তনে এলাকাবাসীর উদ্যোগে মতবিনিময় সভায় বক্তব্য রাখেন।

এরপর চতুলের হারাতৈল মহিলা মাদ্রাসা মাঠে এলাকার ১৪ মৌজার সর্বস্তরের লোকজনদের উদ্যোগে আয়োজিত মতবিনিময় সভা পরবর্তী চতুল বাজারে নির্বাচনী কার্যালয় উদ্বোধনী অনুষ্ঠান সহ এসব মতবিনিময়কালে চেয়ারম্যান প্রার্থী একেএম শামসুজ্জামান বাহার বলেন, চতুল ইউনিয়নবাসী দলমতের উর্ধ্বে উঠে সর্বস্তরের মানুষ আমাকে যে অকুন্ঠ সমর্থন জানিয়েছেন তা আমি এই এলাকার মানুষের উন্নয়নের মাধ্যমে প্রতিদান দিতে চাই। 

সবাই আমার প্রয়াত পিতা কানাইঘাট উপজেলা পরিষদের প্রথম নির্বাচিত চেয়ারম্যান এম.এ রকিব চতুলবাসীর জন্য যে উন্নয়ন করেছিলেন বিধায় সবাই আজ আমার পিতার ভালো কাজের জন্য আমাকে সমর্থন করছেন। পিতার মতো কানাইঘাটবাসীর সেবা করার জন্য সকল মত ও পথের মানুষের সমর্থন নিয়ে নির্বাচনে অংশগ্রহণ করছি। আপনারা সবাই আমাকে সহযোগিতা এবং ৫ জুনে অনুষ্ঠিত নির্বাচনে ভোট দিয়ে বিজয়ী করলে সব-সময় আপনাদের পাশে থেকে এলাকার উন্নয়ন সহ মানুষের কল্যাণে কাজ করে যাব।

তিনি আরো বলেন, উপজেলার যেখানে যাচ্ছি মানুষ আমাকে সমর্থন করছেন আমার পিতার সকল ভালো কাজের জন্য। আমিও আপনাদের পাশে থেকে সব-সময় ভালো কাজ করতে চাই। দলমতের উর্ধ্বে উঠে এসব মতবিনিময় সভায় চতুলবাসীর সমর্থন ও সহযোগিতা কামনা করেন তিনি। প্রতিটি মতবিনিময় সভায় এলাকার গণ্যমান্য ব্যক্তিবর্গ, আলেম-উলামা, জনপ্রতিনিধি, ব্যবসায়ী, বিভিন্ন রাজনৈতিক দলের নেতৃবৃন্দ, যুবক-তরুণ সমাজ কানাইঘাটকে একটি উন্নত সমৃদ্ধ উপজেলায় পরিণত করতে চেয়ারম্যান প্রার্থী শামসুজ্জামান বাহারের প্রতি তাদের পূর্ণ সমর্থন জানিয়ে বক্তব্য রাখেন।

এছাড়া চেয়ারম্যান প্রার্থী শামসুজ্জামান বাহার আজ রবিবার উপজেলার ৪নং সাতবাঁক ইউনিয়নের জুলাই কওমি মাদ্রাসা, চরিপাড়া মহিউস সুন্নাহ মাদ্রাসায় এলাকাবাসীর উদ্যোগে আয়োজিত মতবিনিময় সভায় বক্তব্য রাখেন। পরে স্থানীয় ভবানীগঞ্জ বাজারে নির্বাচনী কার্যালয় উদ্বোধন করেন তিনি।

Saturday, May 18

নবনির্বাচিত কানাইঘাট ট্রাক-শ্রমিক ইউনিয়নের নয়া কমিটিকে কিউ.এম ফারুকের অভিনন্দন

নবনির্বাচিত কানাইঘাট ট্রাক-শ্রমিক ইউনিয়নের নয়া কমিটিকে কিউ.এম ফারুকের অভিনন্দন


কানাইঘাট নিউজ ডেস্ক ::

সিলেট জেলা ট্রাক পিকআপ কাভার্ডভ্যান শ্রমিক ইউনিয়ন রেজিঃ নং চট্র-২১৫৯ এর অন্তর্ভুক্ত কানাইঘাট শাখার নব-নির্বাচিত কমিটিকে অভিনন্দন ও শুভেচ্ছা জানিয়েছেন জেলা জাতীয় সেচ্ছাসেবক পার্টির সাবেক সহ-সভাপতি কিউ.এম.ফররুক আহমদ ফারুক।

এক অভিনন্দন বার্তায় কিউ.এম.ফররুক আহমদ ফারুক বলেন,' নির্বাচিত কমিটি শ্রমিকদের সব ধরনের সুযোগ-সুবিধা নিশ্চিত করতে অগ্রণী ভুমিকা পালন করবে। উক্ত কমিটি শ্রমিকের অধিকার আদায়ের একটি মঞ্চ। সেইসাথে নির্বাচিত কমিটি শ্রমিকদের নায্য দাবি আদায়ে সবসময় সোচ্চার থাকবে    বলে আশাবাদ ব্যক্ত করেন তিনি।

উল্লেখ্য,আজ শনিবার সকাল ৮টা থেকে বিকেল ৪ টা পর্যন্ত ব্যাপক উৎসব মূখর পরিবেশে সিলেট জেলা ট্রাক পিকআপ কাভার্ডভ্যান শ্রমিক ইউনিয়ন কানাইঘাট শাখার ভোট গ্রহণ অনুষ্ঠিত হয়। 

নির্বাচনে সভাপতি পদে দেলোয়ার হোসেন এবং সাধারণ সম্পাদক পদে সুহেল আহমদ নির্বাচিত হয়েছেন। 

 

কানাইঘাটে আনজুমানে আল-ইসলাহর মতবিনিময় সভা অনুষ্ঠিত

কানাইঘাটে আনজুমানে আল-ইসলাহর মতবিনিময় সভা অনুষ্ঠিত


কানাইঘাট নিউজ ডেস্ক:

নজুমানে আল ইসলাহ কানাইঘাট উপজেলা শাখার দায়িত্বশীল  সভা  শুক্রবার(১৭ মে) সংগঠনের কার্যালয়ে অনুষ্টিত হয়।

শাখা সভাপতি হাফিজ মাওলানা ফারুক আহমদ-এর সভাপতিত্বে এবং সাধারণ সম্পাদক মাওলানা আল আমীন সিদ্দিকীর সঞ্চালনায় উক্ত সভা অনুষ্টিত হয়। সভায় সংগঠনের কার্যক্রম গতিশীল করার লক্ষ‌্যে বিভিন্ন প্রস্তাব ও নির্দেশনামুলক বক্তব্য দেন দায়িত্বশীল নেতৃবৃন্দ।

এতে বক্তব্য দেন যথাক্রমে কানাইঘাট উপজেলা তালামীযের সাবেক সভাপতি প্রভাষক মাওলানা জহিরুল আলম,আল ইসলাহ উপজেলা শাখার সিনিয়র সভাপতি মাওলানা আহমদ হোসাইন, মাওলানা আব্দুর রহিম মাখদুমি,লতিফিয়া  ক্বারী সোসাইটি কানাইঘাট উপজেলা শাখার সভাপতি মাওলানা আব্দুল আহাদ, উপজেলা তালামীযের সাধারণ সম্পাদক তানভীর আহমদ ১ নং লক্ষীপ্রসাদ পূর্ব ইউপি আল ইসলাহ’র সহ-সভাপতি হাজী আব্দুল মান্নান,সাধারণ সম্পাদক হুসাইন আহমদ কামরান, প্রচার সম্পাদক তাজুল ইসলাম তাজিল, ২নং লক্ষীপ্রসাদ পশ্চিম ইউপি আল ইসলাহর আহবায়ক শামীম আহমদ,৩ নং দিঘীরপার ইউপি আল ইসলাহর  সভাপতি হাফিজ মাওলানা জুবায়ের আহমদ,সহ-সভাপতি শাহ তাজিম উদ্দিন,সাধারণ সম্পাদক রফিক আহমদ চৌধুরী, সহ-সাধারণ সম্পাদক,মাওলানা হুসাইন আহমদ,সাংগঠনিক সম্পাদক হাফিজ ফরিদ আহমদ ,৪ নং সাতবাক ইউপি আল ইসলাহর সভাপতি ক্বারী রাশিদ আলী, ইউপি আল ইসলাহ নেতা মাহমুদুল হাসান,ইয়াহইয়া চৌধুরী,দেলোয়ার হুসেন,৫ নং বড়চতুল ইউনিয়ন আল ইসলাহ সভাপতি হাফিজ বিলাল আহমদ, ৯ নং রাজাগন্জ ইউপি সাধারণ সম্পাদক জুনেদ আহমদ প্রমুখ।(বিজ্ঞপ্তি)

Tuesday, May 14

তিন সপ্তাহে কানাইঘাটে ১০ জনের প্রাণহানি

তিন সপ্তাহে কানাইঘাটে ১০ জনের প্রাণহানি


মাহবুবুর রশিদ:

সিলেটের কানাইঘাট উপজেলায় গত তিন সপ্তাহে বিভিন্ন ঘটনায় ১০ জনের মৃত্যু হয়েছে। একের পর এক এই অস্বাভাবিক মৃত্যুতে পুরো কানাইঘাট উপজেলায় শোকের ছায়া নেমে আসার পাশাপাশি জনমনে ভয় ও আতংকের সৃষ্টি করেছে। একই ঘটনায় তিন জন নিহত হওয়ার ঘটনায় জনমনে চাপা ক্ষোভও বিরাজ করছে।

মসজিদের সীমানা নিয়ে বিরোধে সংঘর্ষে আপন তিন ভাই নিহত হন। এই তিন জনের মৃত্যুতে দুশ্চিন্তায় একই পরিবারের এক গৃহবধূর মৃত্যু হয়েছে। এছাড়া বজ্রপাতে তিনজনের মৃত্যু হয়েছে। সড়ক দুর্ঘটনায় একজন, বিদ্যুৎস্পৃষ্টে একজন এবং পানিতে ডুবে ১ শিশুর মৃত্যু হয়েছে। এ ছাড়াও যুক্তরাষ্ট্রের নিউইয়র্কে বন্দুকধারীর গুলিতে কানাইঘাটের ইউসুফ নামের একজন নিহত হন এ সময়ে।

ট্রিপল মার্ডারসহ একই পরিবারের চার জনের মৃত্যু :

উপজেলার বড়চতুল ইউনিয়নের হারাতৈল মাঝবড়াই গ্রামের জামে মসজিদের সীমানার জায়গা নিয়ে বিরোধের জের ধরে সংঘর্ষে আপন ভাই-ভাতিজাদের হাতে তিন ভাইয়ের মৃত্যুর ঘটনাটি সিলেটজুড়ে আলোচনার ঝড় তোলে। এই ঘটনায় দুশ্চিন্তায় একই পরিবারের রুমানা নামের এক পুত্রবধূর মৃত্যু হয় ।

গত ২২ এপ্রিল সকাল ১১টায় নিহতদের আপন বড় ভাই সমছুল হক ও ভাতিজা আলমাছ উদ্দিন, কামাল আহমদ, সুহেল আহমদ, রুহুল আহমদসহ অন্যান্যরা দেশীয় ধারালো অস্ত্রশস্ত্রে সজ্জিত হয়ে অতর্কিত হামলা চালায়। ধারালো লম্বা দা দিয়ে এলোপাতাড়ি কুপিয়ে জয়নাল আবেদীনকে রক্তাক্ত অবস্থায় রাস্তার পাশে ফেলে রাখে। চিৎকার শুনে বাড়ি থেকে ভাইকে প্রাণে বাঁচাতে এগিয়ে এলে হামলাকারীরা ধারালো অস্ত্র দিয়ে কুপিয়ে জয়নাল আবেদীনের আপন বড় ভাই দুবাই প্রবাসী ছয়ফুল্লাহ ও ওমান প্রবাসী আব্দুল্লাহসহ আরও দুই জনকে গুরুতর আহত করে। সংঘর্ষের দিন সিলেট এমএজি ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে যাওয়ার সময় পথিমধ্যে মারা যান সাবেক ইউপি সদস্য জয়নাল আবেদীন। একই হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় ২৮ এপ্রিল মারা যান বড় ভাই ছয়ফুল্লাহ এবং সিলেট ইবনেসিনা হাসপাতালের আইসিউতে থাকা ভাই আব্দুল্লাহ গত ২ মে মারা যান। 
 
কানাইঘাট থানার অফিসার ইনচার্জ জাহাঙ্গীর হোসেন সরদার বলেন, ‘মসজিদের সীমানার জায়গা নিয়ে সংঘর্ষে ভাতিজাদের হাতে পর পর মারা যাওয়া তিন ভাইয়ের হত্যাকান্ডের সাথে জড়িতদের প্রত্যেককে চিহ্নিত করা হয়েছে। এ পর্যন্ত পাচজনকে গ্রেফতার করা হয়েছে। ’

এ ব্যাপারে কানাইঘাট গণশিক্ষা উন্নয়ন ফাউন্ডেশনের চেয়ারম্যান ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের পিএইচ.ডি গবেষক এহসানুল হক জসীম বলেন, ‘প্রায় পাঁচ দশক আগে চতুল এলাকায় একই পরিবারের তিন ভাই নিহত হয়েছিলেন। ২০২৪ সালে এসে একই পরিবারের তিন ভাইয়ের মৃত্যুতে আমরা হতবাক। দোষীদের অবশ্যই দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি হতে হবে।’ 

বজ্রপাতে তিনজনের মৃত্যু :

মসজিদে নামাজ পড়াতে যাওয়ার সময় বজ্রপাতে কবীর উদ্দিন (৩৫) নামের এক ইমামের মৃত্যু হয়। তিনি উপজেলার বড়চতুল সোনাতলা এলাকার এবাদুর রহমানের ছেলে। গত ২১ এপ্রিল ভোর চারটার দিকে জৈন্তাপুর উপজেলার লক্ষীপ্রসাদ হাওর এলাকায় বজ্রাঘাতে এই ঘটনা ঘটে।

গত ২ মে বোরো ধান কাটতে গিয়ে বজ্রপাতে এক কৃষক নিহত হন। এই ঘটনায় গুরুতর আহত  হন আরো দুই জন। উপজেলার দিঘীরপার পূর্ব ইউনিয়নের শফিক হাওরে এ ঘটনা ঘটে। নিহত কৃষক বাবুল আহমদ (৪৮) উপজেলার দক্ষিণ কুয়রেরমাটি এলাকার মৃত আব্দুস সালামের পুত্র।

মাঠে গরু চরাতে গিয়ে বজ্রপাতে এক ওমান প্রবাসীর মৃত্যু হয়েছে। তিনি উপজেলার দর্পনগর পশ্চিম করচটি গ্রামের রফিকুল হকের পুত্র ওমান প্রবাসী মোহাম্মদ মাহতাব উদ্দিন উরফে মাতাই। স্থানীয়রা জানান, গত ৬মে সকাল সাড়ে ১১টার দিকে নিহত মাহতাব উদ্দিন সুরমা নদী তীরবর্তী মাঠে গরু চরাতে যান। এক পর্যায়ে হঠাৎ বজ্রপাত হলে তিনি ঘটনাস্থলেই মারা যান।

বিদ্যুৎস্পৃষ্টে যুবকের মৃত্যু: 

গত ২ মে বিদ্যুৎস্পৃষ্ট হয়ে হেলাল আহমদ নামে এক যুবকের মৃত্যু হয়। নিহত যুবক পৌরসভার লালারচক গ্রামের আব্দুছ ছালামের ছেলে।

পৃথক ঘটনায় ফুফু-ভাইজির মৃত্যু:

গত ৪ মে একইদিনে পৃথক ঘটনায় ফুফু ও ভাইজির  মৃত্যু হয়েছে। উপজেলার দিঘীরপার পুর্ব ইউনিয়নে এ ঘটনা ঘটে। স্থানীয়রা জানান, দিঘীরপার ইউনিয়নের মাঝরগ্রামের হাফিজ আব্দুল আহাদের তিন বছর বয়সী মেয়ে বাড়ির সকলের অজান্তে পানিতে ডুবে মারা যায়। ভাতিজির মৃত্যুর সংবাদ পেয়ে মেয়েটির ফুফু দিঘীরপার পুর্ব ইউনিয়নের দর্পনগর পশ্চিম (নয়াগ্রাম) আব্দুস শহীদের স্ত্রী রুকিয়া বেগম (৩০) বাপের বাড়ির উদ্দেশ্যে রওয়ানা হন। পথিমধ্যে সড়কের বাজার এলাকায় টমটম উল্টে  রুকিয়া বেগমসহ তিন জন আহত হন।  পরবর্তীতে স্থানীয় লোকজন তাদেরকে উদ্ধার করে সিলেট উইমেন্স মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নেওয়ার পর বিকেলে রুকিয়া বেগম মারা যান।

এ ছাড়া গত ২৭ এপ্রিল যুক্তরাষ্ট্রের নিউইয়র্কের বাফেলো শহরে কৃষ্ণাঙ্গ দুর্বৃত্তের গুলিতে নিহত হন ইউসুফ আলী জনি (৪২)। তিনি কানাইঘাট উপজলোর ঝিঙ্গাবাড়ী ইউনিয়নের তিনচটি গ্রামের সাবেক ইউপি সদস্য নুরুল হকের ছেলে। 

এত কম সময়ের ব্যবধানে এতো অস্বাভাবিক মৃত্যুর ঘটনায় জনমনে ভয় ও আতংক বিরাজ করছে। 
এ ব্যাপারে এহসানুল হক জসীম বলেন, ‘কানাইঘাট উপজেলায় এতো কম সময়ে এত সময়ে এমন সংখ্যক অস্বাভাবিক মৃত্যুর ঘটনায় স্মরণাতীতকালে ঘটেনি।’ নিহতদের পরিবারের প্রতি সমবেদনা জানিয়ে তিনি বলেন,‘ তাদের পরিবারকে ক্ষতিপূরণ দেওয়ার ব্যবস্থা করা হোক।’  
কানাইঘাটে চেয়ারম্যান প্রার্থী বাহারের মতবিনিময়

কানাইঘাটে চেয়ারম্যান প্রার্থী বাহারের মতবিনিময়


নিজস্ব প্রতিবেদক ::

ঐতিহ্যবাহী দারুল উলুম দারুল হাদিস কানাইঘাট মাদ্রাসার শিক্ষক ও ছাত্রদের সাথে মতবিনিময় করেছেন আসন্ন উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে চেয়ারম্যান প্রদপ্রার্থী যুক্তরাজ্য প্রবাসী কমিউনিটি নেতা এ.কে.এম শামসুজ্জামান বাহার। 

মঙ্গলবার (১৪ মে) বাদ যোহর মাদ্রাসা মিলনায়তনে মতবিনিময়কালে উপস্থিত ছিলেন মাদ্রাসার মুহতামিম বিশিষ্ট আলেমেদ্বীন আল্লামা মোহাম্মদ বিন ইদ্রিস লক্ষীপুরী,নায়েবে মুহতামিম আল্লামা আলিম উদ্দিন দূর্লভপুরী,শায়খুল হাদীস শামসুদ্দিন দূর্লভপুরী সহ মাদ্রাসার শিক্ষকবৃন্দ এবং উপজেলা আওয়ামী লীগ ও সহযোগী সংগঠনের বিভিন্ন পর্যায়ের নেতৃবৃন্দ।  

মতবিনিময়কালে উপজেলা চেয়ারম্যান প্রার্থী কেন্দ্রীয় আওয়ামী লীগের শিল্প ও বানিজ্য বিষয়ক উপকমিটির সদস্য এ.কে.এম শামসুজ্জামান বাহার বলেন, 'আলেম-ওলামা অধ্যুষিত উপমহাদেশের প্রখ্যাত আলেমেদ্বীন আল্লামা মুশাহিদ বায়মপুরী সহ অসংখ্য পীর,উলামা মাশায়েখের পবিত্র জন্মভূমি হচ্ছে কানাইঘাট। আলেম-ওলামাদের দোয়া ও ভালোবাসা নিয়ে মসজিদ,মাদ্রাসা এবং জন্মভূমি কানাইঘাটকে একটি সমৃদ্ধ ও দূর্নীতিমুক্ত উপজেলায় পরিণত করতে উপজেলা নির্বাচনে আমি প্রার্থী হয়েছি। মহান আল্লাহর কাছে শুকরিয়া জানাই আলেম ওলামা সহ সর্বস্থরের জনগণ আমাকে দলমতের ঊর্ধ্বে  উঠে সহযোগিতা করে যাচ্ছেন। 

আগামী ৫ জুন অনুষ্ঠিতব্য কানাইঘাট উপজেলা পরিষদের নির্বাচনে আলেম-ওলামাদের সমর্থন কামনা করে শামসুজ্জামান বাহার  আরো বলেন, আমি কথা দিচ্ছি সবসময় আপনাদের পাশে থাকবো এবং সকলের সুপরামর্শ নিয়ে ধর্মীয় সম্পৃীতী বজায় রেখে দলমত নির্বিশেষে সকল মত ও পথের মানুষকে সাথে নিয়ে অন্যায় ও দূর্নীতির বিরুদ্ধে সোচ্চার থাকবো এবং উন্নয়নের জন্য কাজ করবো।

মতবিনিময়কালে শামসুজ্জামান বাহার আরো বলেন,তার প্রয়াত পিতা কানাইঘাট উপজেলা পরিষদের প্রথম চেয়ারম্যান আলহাজ্ব এম.এ রকিব কানাইঘাটে উন্নয়নের জন্য অনেক কাজ করেছিলেন।  এখন পর্যন্ত আলেম ওলামা থেকে প্রবীণ মুরব্বিরা আমার বাবার জন্য দোয়া করেন। কারণ তিনি সবসময় আলেম ওলামাদের পরামর্শে সবাইকে একসাথে নিয়ে কাজ করেছিলেন,বিধায় ওসিয়ত অনুযায়ী মৃত্যুর পর আমার বাবাকে এই মাদ্রাসা প্রাঙ্গণে আল্লামা মোশাহিদ বায়মপুরীর কবরের পাশে শায়িত করা হয়েছে। নির্বাচনী প্রচার-প্রচারণাকালে আলেম সমাজের সমর্থন ও সহযোগিতা চান তিনি। 

এসময় চেয়ারম্যান প্রার্থী শামসুজ্জামান বাহারের সাথে উপস্থিত ছিলেন উপজেলা আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি সাবেক ছাত্র নেতা জামাল উদ্দিন, সাংগঠনিক সম্পাদক শাহাব উদ্দিন, উপজেলা আওয়ামী লীগের ধর্ম বিষয়ক সম্পাদক নজির উদ্দিন প্রধান, পৌর আওয়ামী লীগের সভাপতি কেএইচএম আব্দুল্লাহ,উপজেলা সেচ্ছাসেবলীগের সাবেক সভাপতি আজমল হোসেন,উপজেলা বঙ্গবন্ধু ফাউন্ডেশনের সভাপতি শরীফ উদ্দিন, আওয়ামী লীগ নেতা সাইফুল আলম,উপজেলা কৃষকলীগের সভাপতি শাহাব উদ্দিন চৌধুরী, সাধারণ সম্পাদক হারিছ উদ্দিন, প্রবাসী আওয়ামী লীগ নেতা আব্দুল আজিজ, সাবেক ছাত্র নেতা মারুফ আহমদ,শাহরিয়ার কবির রায়হান, শ্রমিকলীগ নেতা ফরিদ উদ্দিন,ছাত্রলীগ নেতা এম আফতাব উদ্দিন সহ বিপুল সংখ্যক নেতাকর্মী মতবিনিময় শেষে দারুল উলুম মাদ্রাসার শিক্ষকবৃন্দ ও দলের নেতাকর্মীদের নিয়ে আল্লামা মোশাহিদ বায়মপুরীর কবর জিয়ারত করেন শামসুজ্জামান বাহার। এছাড়া তিনি মঙ্গলবার দিনব্যাপী পৌরসভার রায়গড়, বড়দেশ,রাজাগঞ্জ সহ বিভিন্ন এলাকায় একাধিক নির্বাচনী মতবিনিময় সভা প্রচারণা চালান এবং সবার সহযোগিতা সমর্থন কামনা করেন।

Monday, May 13

এসএসসি ও সমমান পরীক্ষায় উত্তীর্ণদের প্রজন্ম প্রজেক্টের শুভেচ্ছা

এসএসসি ও সমমান পরীক্ষায় উত্তীর্ণদের প্রজন্ম প্রজেক্টের শুভেচ্ছা


নিজস্ব প্রতিবেদক :

মাধ্যমিক স্কুল সার্টিফিকেট (এসএসসি) ও সমমানের পরীক্ষায় উত্তীর্ণদের অভিনন্দন ও শুভেচ্ছা জানিয়েছেন প্রজন্ম প্রজেক্ট ফাউন্ডেশনের ফাউন্ডার এবং সিইও মো: মাছুম আহমদ ।

এক শুভেচ্ছা বার্তায় তিনি বলেন, ২০২৪ সালের এসএসসি ও সমমানের পরীক্ষায় যারা কৃতিত্বের সাথে উত্তীর্ণ হয়েছো আমি তোমাদের আন্তরিক শুভেচ্ছা ও অভিনন্দন জানাই । পাশাপাশি যারা যে কোনো কারণেই হোক উত্তীর্ণ হতে পারনি, তোমাদের হতাশ হওয়ার কিছু নেই। এখন থেকে চেষ্টা করলে ভবিষ্যতে নিশ্চয়ই তোমরা এ বাধা অতিক্রম করে ভালো ফলাফল অর্জন করতে পারবে।  

কানাইঘাট উপজেলার যেসকল শিক্ষার্থী এসএসসি ও সমমান পরীক্ষায় উত্তীর্ণ হয়েছো অথবা হওনি অর্থাভাবে যারা পড়ালেখা চালিয়ে যেতে পারবেন না তাদের পাশে সবসময় থাকবে 'প্রজন্ম প্রজেক্ট'। আর্থিক সহায়তার প্রয়োজন হলে সরাসরি অথবা ইমেলের মাধ্যমে যোগাযোগ করতে পারেন প্রজন্ম প্রজেক্টের সাথে। 

E:-projonmoproject@gmail.com



উপজেলা পরিষদ নির্বাচন সুষ্ঠু করতে কানাইঘাটে আইন-শৃঙ্খলা কমিটির সভায় গুরুত্বারূপ

উপজেলা পরিষদ নির্বাচন সুষ্ঠু করতে কানাইঘাটে আইন-শৃঙ্খলা কমিটির সভায় গুরুত্বারূপ


নিজস্ব প্রতিবেদক:

সিলেটের কানাইঘাট উপজেলার মাসিক আইন-শৃঙ্খলা ও চোরাচালান প্রতিরোধ কমিটির সভা সোমবার(১৩ মে) উপজেলা সভাকক্ষে অনুষ্ঠিত হয়। 

কমিটির সভাপতি উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ফারজানা নাসরিনের সভাপতিত্বে মাসিক আইন-শৃঙ্খলা কমিটির সভায় আগামী ৫ জুন অনুষ্ঠিতব্য কানাইঘাট উপজেলা পরিষদের নির্বাচন সুষ্ঠু, অবাধ ও নিরপেক্ষভাবে সম্পন্ন করার জন্য গুরুত্বারূপ করা হয়।

সভায় নির্বাহী কর্মকর্তা ফারজানা নাসরিন বলেন, নির্বাচন কমিশনের নির্দেশ অনুযায়ী কানাইঘাট উপজেলা পরিষদের নির্বাচন শান্তিপূর্ণ ও নিরপেক্ষভাবে সম্পন্ন করার জন্য উপজেলা প্রশাসনের পক্ষ থেকে সব ধরনের পদক্ষেপ ইতিমধ্যে নেয়া হয়েছে।

তিনি বলেন, সরকারি কর্মকর্তা-কর্মচারী থেকে শুরু করে সরকারের সুবিধাভোগী কেউ নির্বাচনে কোন প্রার্থীর পক্ষে কাজ করলে অভিযোগ প্রমাণিত হলে তাদের বিরুদ্ধে নির্বাচনের আচরণ বিধি অনুযায়ী কঠোর ব্যবস্থা নেয়া হবে। ইউনিয়ন পরিষদ এবং সরকারি কোন প্রতিষ্ঠান বা স্থাপনায় কোন প্রার্থী কোন ধরনের নির্বাচনী সভা-সমাবেশ করতে পারবেন না। এসব প্রতিষ্ঠানে কোন প্রার্থী সভা-সমাবেশ করলে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে। তিনি একটি অবাধ-সুষ্ঠু, নিরপেক্ষ নির্বাচন সম্পন্ন করতে প্রশাসনের পক্ষ থেকে যা যা করা প্রয়োজন সেই ব্যবস্থা নেয়া হবে। প্রার্থীদের নির্বাচনী আচরণবিধি মেনে প্রচার-প্রচারণা চালাতে হবে।
এছাড়া আইন-শৃঙ্খলা কমিটির সভায় নির্বাচনকে সামনে রেখে যাতে করে কোন ধরনের অপ্রীতিকর ঘটনা না ঘটে এজন্য থানা পুলিশ ও অন্যান্য আইন-শৃঙ্খলা বাহিনী সহ জনপ্রতিনিধিদের নিষ্ঠার সাথে দায়িত্ব পালনের উপর গুরুত্ব দেয়া হয়। সভায় বিদ্যুৎ পরিস্থিতি স্বাভাবিক রাখা সহ চোরাচালান প্রতিরোধ, নারী নির্যাতন, বাল্য বিবাহ প্রতিরোধ এবং গ্রাম আদালতে মামলা-মোকদ্দমা নিষ্পত্তি করার জন্য জনপ্রতিনিধিদের আরো সক্রীয় ভূমিকা পালনের আহ্বান জানান।

আইন-শৃঙ্খলা কমিটির সভায় বিভিন্ন মতামত তুলে ধরে বক্তব্য রাখেন, থানার অফিসার ইনচার্জ জাহাঙ্গীর হোসেন সরদার, স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের টিএইচও ডাঃ সুবল চন্দ্র বর্মণ, মাধ্যমিক শিক্ষা কর্মকর্তা নুর মোহাম্মদ, প্রাথমিক শিক্ষা কর্মকর্তা রফিকুল ইসলাম তালুকদার, সমাজসেবা কর্মকর্তা মোঃ জিলানী, সুরইঘাট বিজিবি ক্যাম্পের কোম্পানী কমান্ডার নায়েক সুবেদার সারোয়ার, বীরমুক্তিযোদ্ধা সুবেদার আফতাব উদ্দিন, কানইঘাট প্রেসক্লাবের সভাপতি নিজাম উদ্দিন, মনসুরিয়া কামিল মাদ্রাসার ভারপ্রাপ্ত অধ্যক্ষ খলিলুর রহমান, উপজেলা আনসার ভিডিপি কর্মকর্তা কমলা বেগম, ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যানদের মধ্যে আব্দুল মালিক চৌধুরী, প্রভাষক আফসার উদ্দিন আহমেদ চৌধুরী, আবু তায়্যিব শামীম, লোকমান উদ্দিন সহ আরো অনেকে।
এসএসসিতে জিপিএ-৫ পেয়েছে ঐশী

এসএসসিতে জিপিএ-৫ পেয়েছে ঐশী


নিজস্ব প্রতিবেদক :

সিলেট শিক্ষা বোর্ডের অধীনে অনুষ্ঠিত এবারের এসএসসি পরীক্ষায় অংশগ্রহণ করে সিলেট ক্যান্টনমেন্ট পাবলিক স্কুল এন্ড কলেজ থেকে জিপিএ-৫ পেয়ে উত্তীর্ণ হয়েছে ফাইজা আলম চৌধুরী ঐশী। সে জৈন্তাপুর উপজেলার চারিকাটা ইউনিয়ন পরিষদের সাবেক চেয়ারম্যান ক্রীড়া সংগঠক, শিক্ষানুরাগী শাহ আলম চৌধুরী তোফায়েলের বড় মেয়ে।

ফাইজা আলম চৌধুরী ঐশী তার এ কৃতিত্বপূর্ণ ফলাফলের পিছনে শিক্ষকবৃন্দ ও বাবা-মায়ের অনুপ্রেরণা রয়েছে বলে জানিয়েছে। ভবিষ্যতে উচ্চ শিক্ষা গ্রহণ করে আরো ভালো ফলাফল অর্জন করে দেশের একজন সু-নাগরিক হতে চায় ফাইজা আলম চৌধুরী ঐশী।

ঐশীর গর্বিত পিতা শাহ আলম চৌধুরী তোফায়েল ও মাতা হালিমা আক্তার শেফালী মেয়ের উজ্জ্বল ভবিষ্যতের জন্য সবার কাছে দোয়া চেয়েছেন।

Sunday, May 12

কানাইঘাটে আন্তর্জাতিক নার্স দিবস পালিত

কানাইঘাটে আন্তর্জাতিক নার্স দিবস পালিত


নিজস্ব প্রতিবেদক :
মাদের নার্স, আমাদের ভবিষ্যৎ অর্থনৈতিক শক্তি, নার্সিং সেবার ভিত্তি’ এ প্রতিপাদ্যকে সামনে রেখে সিলেটের কানাইঘাটে আন্তর্জাতিক নার্সেস ও মিডওয়াইফ দিবস পালন করা হয়েছে।

রোববার(১২ মে) দিবসটি উপলক্ষ্যে র‌্যালি, আলোচনা সভা ও কেক কাটা হয়। উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স চত্বরে র‌্যালি শেষে স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের হলরুমে এক আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়।

সিনিয়র স্টাফ নার্স ফারহানা বেগমের সভাপতিত্বে এবং নার্সিং কর্মকর্তা ফজলে রাব্বি সাজুর সঞ্চালনায় শুরুতেই স্বাগত বক্তব্য দেন নার্স আনোয়ার হোসেন কয়েস।

আলোচনা সভায় প্রধান অতিথি ছিলেন
উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা: সুবল চন্দ্র বর্মণ।


বিশেষ অতিথি হিসেবে স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের আবাসিক মেডিকেল অফিসার ডা: এরফানুল হক,প্রাক্তন আবাসিক মেডিকেল অফিসার ডা: তনয় কুমার বর্ধন,মেডিকেল অফিসার ডা: রিয়াজ মাহমুদ তমাল, ডা: মোস্তাফিজুর রহমান, ডা: নিশাত সায়মা প্রিয়া,ডা: সাবিহা জাহান সোনিয়া,কানাইঘাট প্রেসক্লাবের সাধারণ সম্পাদক মাহবুবুর রশিদ বক্তব্য দেন। 

এছাড়াও  দিবসটির তাৎপর্য তুলে ধরে বক্তব্য দেন স্টাফ নার্স  এম সিরাজুল হক, ওমর ফারুক,কাজী ফারজানা খাতুন,পান্না মালাকার ও মিডওয়াইফ শুকরিয়া চৌধুরী।

আলোচনা সভা শেষে আন্তর্জাতিক নার্সেস ও মিডওয়াইফ দিবস উপলক্ষে কেক কাটা হয়।