Thursday, June 27

অন্ধকারে মোবাইল ফোন ব্যবহারে মারাত্মক বিপদ!

বর্তমানে মোবাইল অত্যন্ত প্রয়োজনীয় একটি জিনিস। তবে এর উপকারিতা অনেক থাকলেও, এর অপকারিতা কিন্তু কম নয়। বিশেষ করে যারা রাতে অন্ধকারে বিভিন্ন কাজে মোবাইল ফোন ব্যবহার করেন তাদের জন্য। এর ফলে শরীরের ওপর মারাত্বক ক্ষতিকর প্রভাব পড়ে। দীর্ঘক্ষণ অন্ধকারে মোবাইল ফোনের দিকে তাকিয়ে থাকলে শারীরিক অনেক ক্ষতি হয়। চলুন তবে জেনে নেয়া যাক এর ক্ষতিকর প্রভাবগুলো-

রেটিনা খারাপ হতে শুরু করে
দীর্ঘক্ষণ অন্ধকারে মোবাইল ফোনের দিকে তাকিয়ে থাকলে মোবাইল ফোনের নীল আলোতে চোখের রেটিনার মারাত্বক ক্ষতি হয়। এর ফলে চোখের মারাত্বক ক্ষতি হয়। এমনকি দীর্ঘ দিন ধরে যদি এভাবে চলতে থাকে তাহলে দৃষ্টিশক্তি চিরদিনের মতো হারিয়ে যেতে পারে।
দৃষ্টিশক্তি কমে যায়
দীর্ঘক্ষণ অন্ধকারে মোবাইল ফোনের দিকে তাকিয়ে থাকলে মোবাইল ফোনের আলোতে চোখের লেন্সের মারাত্বক ক্ষতি হয়। এতে চোখের উপর অনেক প্রেসার পরে। অনেক সময় ধরে মোবাইল ঘাটলে তার নীল আলো সরাসরি চোখের উপর পরতে থাকে। যে কারণে চোখে যন্ত্রণা হতে পারে। আর দীর্ঘদিন ধরে যদি এমনটা হতে থাকে, তাহলে এক সময়ে দৃষ্টিশক্তি মারাত্মকভাবে কমে যেতে পারে।
ব্রেস্ট এবং প্রস্টেট ক্যান্সারের আশঙ্কা থাকে
মোবাইল ফোনের নীল আলোর দিকে তাকিয়ে থাকার কারণে শরীরে মেলাটোনিন নামক এক প্রকার রাসায়ানিক নিসৃত হয়। এই মেলাটোনিন অন্য বেশ কিছু হরমোনের ক্ষরণে বাঁধা সৃষ্টি করে। এর ফলে শরীরে অ্যান্টি-অক্সিডেন্টসহ একাধিক গুরুত্বপূর্ণ উপাদানের ঘাটতি দেখা দেয়। এছাড়াও ব্রেস্ট এবং প্রস্টেট ক্যান্সারের মতো মরণ ঘাতি রোগে আক্রান্ত হওয়ার আশঙ্কা থাকে।
ঘুম কমে যায়
দীর্ঘক্ষণ অন্ধকারে মোবাইল ফোনের দিকে তাকিয়ে থাকলে মোবাইল ফোনের আলো নানা ভাবে শরীরে মেলাটনিন হরমোনের ক্ষরণ কমিয়ে দেয়। ফলে সহজে ঘুম আসতে চায় না। কারণ আমাদের ঘুম কতটা ভাল হবে, তা অনেকাংশেই নির্ভর করে মেলাটোনিন হরমোনের ক্ষরণের উপর। আর ঘুম না ভালো হলে কোনো কাজই ঠিক মত করা যায় না। মনযোগ নষ্ট হয়ে যায় । এর ফলে মাথা ব্যথা সহ নানা অসুবিধা দেখা দেয়।
মস্তিষ্কের মারাত্মক ক্ষতি হয়
অন্ধকারে মোবাইল ফোনের আলো চোখের মাধ্যমে সরাসরি মস্তিষ্কের উপর প্রভাব ফেলে। এতে মস্তিষ্কের কর্মক্ষমতা কমে যায়। তাছাড়া দীর্ঘক্ষণ অন্ধকারে মোবাইল ফোনের দিকে তাকিয়ে থাকলে ঘুম নষ্ট হয়ে যায়। ফলে ঠিকমতো ঘুম না হলে আস্তে আস্তে মস্তিষ্কের কাজ করার ক্ষমতা কমতে শুরু করে। আর এতে করে স্মৃতিশক্তি লোপ পায়। শুধু তাই নয় ব্রেণে রক্ত প্রবাহে নানা বাঁধা আসতে শুরু করে। ফলে মস্তিষ্ক সম্পর্কিত নানা জটিল রোগে আক্রান্ত হওয়ার আশঙ্কা মারাত্মক ভাবে বেড়ে যায়।

শেয়ার করুন

0 comments:

পাঠকের মতামতের জন্য কানাইঘাট নিউজ কর্তৃপক্ষ দায়ী নয়

নোটিশ :   কানাইঘাট নিউজ ডটকমে প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, আলোকচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও বিনা অনুমতিতে ব্যবহার করা বেআইনি -সম্পাদক