Monday, May 27

কানাইঘাটে চোরাকারবারিদের বিরুদ্ধে বিজিবি'র মামলা


নিজস্ব প্রতিবেদক:
গত   শুক্রবার   রাতে   কানাইঘাটের   সীমান্তবর্তী   দনা   এলাকা   দিয়ে   ভারত   থেকে   অবৈধভাবে   গরু-মহিষ বাংলাদেশে নিয়ে আসার সময় বিএসএফের গুলিতে কয়েকজন গরু চোরাকারবারি চক্রের সদস্য গুলিবিদ্ধ হয়ে আহত হয়।

চোরাকারাবিদের হামলায় বিজিবির সদস্যরাও আহত হন। এ ঘটনায় বিজিবি সিলেটের একটি   ক্লিনিকে   চিকিৎসাধীন   অবস্থায়   কয়েকজন   গরু-মহিষ   চোরা   কারবারিকে   নজরবন্দী   রাখার   পর রায়হান উদ্দিন নামে এক জন কে গত রবিবার সিলেট থেকে আটকের পর কানাইঘাট থানায় হস্তান্তর করে ১২ জনচোরা কারাবারির বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করেছে।
বিজিবির জকিগঞ্জ ১৯ ব্যাটালিয়নের নায়েক সুবেদার মোঃ নাজমুল হক বাদী হয়ে সরকারি কাজে বাঁধা প্রদান আক্রমন পূর্বক আহত করার অপরাধে পেনেল কোডের১৪৩/১৮৩/৩৩২/৩৫৩ ধারায় অভিযোগ দায়ের করেন। থানার মামলা নং ১২৪/১১২ তাং-২৬/০৫/২০১৯ইং।
মামলায় লক্ষীপ্রসাদ পূর্ব ইউনিয়নের সীমান্তবর্তী এরালীগুল গ্রামের আবুল কালামের পুত্র মোঃ রায়হান উদ্দিন কে গ্রেপ্তার দেখানো হয়েছে।
জানা যায়,মামলায় একই ইউনিয়নের সীমান্তবর্তী   রাতাছড়া গ্রামের গরু-মহিষ   চোরাকারবারি   চক্রের   সদস্য   আবুল   কালাম,   একই   গ্রামের   সাদ্দাম   হোসেন,   লোকমান   হোসেন,আফতাব   উদ্দিন, কাচারি  পাড়া   গ্রামের   ফরিদ  উদ্দিন,   পাতিছড়া   গ্রামের   সোহাগ উদ্দিন,   মাদারপুর গ্রামের হেলাল উদ্দিন, পানি ছড়া গ্রামের সাহাব উদ্দিন, রাতা ছড়া গ্রামের আবু মিয়া সহ  ১২ জন কে আসামী করা হয়েছে।
প্রসঙ্গত যে, কানাইঘাট লক্ষীপ্রসাদ পূর্ব ইউনিয়নের বিভিন্ন সীমান্ত এলাকাদিয়ে সম্প্রতি বেশ কয়েকটি চোরাকারবারি চক্র ভারত থেকে অবৈধভাবে প্রতিদিন বিজিবির চোখ ফাকি দিয়ে বাঁধা নিষেধ উপেক্ষা করে শত শত গরু-মহিষ কানাইঘাটে নিয়ে আসার পর গরু-মহিষের চালান দেশের বিভিন্ন স্থানে বিক্রি করে থাকে।
বিজিবির অভিযোগ তারা ভারত থেকে অবৈধ পথে আনা গরু-মহিষ বিভিন্ন সময়ে আটক করেন। কিন্তু অনেক সময় চোরকারবারিরা সংঘবদ্ধ হয়ে তাদের উপর পর্যন্ত হামলা করে।
শুক্রবার রাত সাড়ে ১১টার দিকে একদল চোরাকারবারি দনা সীমান্ত এলাকা দিয়ে ভারত থেকে গরু-মহিষেরএকটি বড় চালান নিয়ে আসার সময় ভারতের সীমান্ত প্রহরী বিএসএফের উপর চোরকারবারিরা হামলা করলে বিএসএফ গুলি  ও সাউন্ড  গেনেড নিক্ষেপ করলে ৭/৮  জন চোরকারবারি চক্রের  সদস্য গুলিবিদ্ধ  আহত হয়।চোরাকারবারিরা   বিজিবির   উপর   হামলা   করে   বলে   বিজিবি   তাদের   দায়েরকৃত   মামলায়   উল্লেখ   করেছে।স্থানীয়রা জানিয়েছেন, ভারত থেকে প্রতিদিন সীমান্ত এলাকা দিয়ে গরু-মহিষ আসার কারণে এলাকার গ্রামীণ রাস্তা-ঘাট ও ফসলাদির ব্যাপক ক্ষয়ক্ষতি সাধিত হচ্ছে। কেউ চোরকারবারিদের বিরুদ্ধে কথা বললে তারা সংঘবদ্ধ হয় ধারালো অস্ত্রসস্ত্র নিয়ে স্থানীয়দের উপর হামলা চালায়। বিভিন্ন সূত্রে জানা গেছে চোরাকারবারিরা বিভিন্ন মোটা অংকের সপ্তাহিত চুক্তির ভিত্তিতে উৎকোচ দিয়ে তাদের অবৈধ ব্যবসা চালিয়ে যাচ্ছে। 
কানাইঘাট নিউজ ডটকম/২৭মে ২০২৯ ইং


শেয়ার করুন

0 comments:

পাঠকের মতামতের জন্য কানাইঘাট নিউজ কর্তৃপক্ষ দায়ী নয়

নোটিশ :   কানাইঘাট নিউজ ডটকমে প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, আলোকচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও বিনা অনুমতিতে ব্যবহার করা বেআইনি -সম্পাদক