Tuesday, September 11

কানাইঘাটে স্কুল ছাত্রকে নির্যাতনের অভিযোগ

নিজস্ব প্রতিবেদক: কানাইঘাট সড়কের বাজার জেনিফা আইডিয়াল একাডেমির ৬ষ্ট শেণির শিক্ষার্থী সাকিব আল হাসান (১২) কে প্রচন্ড মারধরের ঘটনায় স্কুলের পরিচালক সাদিকুর রহমান খান ও তার স্ত্রী স্কুলের শিক্ষিকা হাজিরা বেগমের বিরুদ্ধে কানাইঘাট থানায় অভিযোগ দায়ের করা হয়েছে। নির্যাতনের শিকার এই শিক্ষার্থীকে উপজেলা হাসপাতালের জরুরী বিভাগে প্রাথমিক চিকিৎসার পর ডাক্তাররা সিলেট ওসমানী হাসপাতালে প্রেরণ করেছেন। অভিযোগে জানাযায়, গত সোমবার সকাল ১০টায় স্কুলের শ্রেণিকক্ষে শিশু শিক্ষার্থী সাকিব আল হাসানকে উপর্যপরি কিল, ঘুষি, চড়, তাপ্পড়, এবং দেওয়ালে তার মাথা টেকিয়ে মারধর করেন স্কুলের পরিচালক সাদিকুর রহমান খান ও তার স্ত্রী শিক্ষিকা হাজিরা বেগম। মারধরে সাকিব আল হাসান অসুস্থ হয়ে পড়লে তাকে উদ্ধার করে অভিবাবকরা ঐদিন বিকেল ২টার দিকে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা তানিয়া সুলতানার কার্যালয়ে উপস্থিত হয়ে নির্যাতনের ঘটনা বর্ণনা করেন। নির্বাহী কর্মকর্তা তানিয়া সুলতানা অসুস্থ শিক্ষার্থী সাকিব আল হাসানের জবানবন্ধি শুনে দায়ীদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা গ্রহণের আশ্বাস দেন। সুবিচার পেতে আজ মঙ্গলবার শিক্ষার্থী সাকিব আল হাসানের চাচা স্থানীয় দর্পনগর পশ্চিম বাল্লা গ্রামের মৃত শফিকুল হকের পুত্র রইছ উদ্দিন বাদী হয়ে থানায় অভিযোগ দায়ের করলে পুলিশ ঘটনাস্থল পরিদর্শন করে। অভিযোগের বাদী রইছ উদ্দিন জানিয়েছেন, তার ভাতিজা সাকিব আল হাসানের স্কুল বেগে রাখা একটি ক্রিকেট বল শ্রেনীকক্ষের নিচে পড়ে গেলে এ নিয়ে ক্ষিপ্ত হয়ে সম্পূর্ন অন্যায় ভাবে তাকে প্রচন্ড মারধর করে সাদিকুর রহমান ও তার স্ত্রী শিক্ষিকা হাজিরা বেগম। বর্তমানে তার ভাতিজা ওসমানী হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছে। তবে স্কুলের পরিচালক সাদিকুর রহমান খান জানিয়েছেন, তার প্রতিষ্ঠানের শিক্ষার্থী সাকিব আল হাসান সবসময় স্কুলে উশৃংখল আচরণ করে থাকে। গত সোমবার পাঠদান চলাকালে সে শ্রেনীকক্ষে পুনরায় উশৃংখল আচরন শুরু করলে শাসন স্বরুপ তিনি দুই একটি হালকা চড়, তাপ্পড় মেরেছেন, এ ঘটনায় তিনি অনুতপ্ত বলে জানান। 

কানাইঘাট নিউজ ডটকম/১১সেপ্টেম্বর ২০১৮ ইং

শেয়ার করুন

0 comments:

পাঠকের মতামতের জন্য কানাইঘাট নিউজ কর্তৃপক্ষ দায়ী নয়

নোটিশ :   কানাইঘাট নিউজ ডটকমে প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, আলোকচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও বিনা অনুমতিতে ব্যবহার করা বেআইনি -সম্পাদক