Tuesday, October 2

লেজার নিয়ে গবেষণা, তিন পদার্থবিজ্ঞানীর নোবেল জয়

কানাইঘাট নিউজ ডেস্ক:
লেজার নিয়ে গবেষণায় যুগান্তকারী অবদানের জন্য চলতি বছর পদার্থবিদ্যায় যৌথভাবে নোবেল পুরস্কার পেয়েছেন তিন বিজ্ঞানী।
তারা হলেন- মার্কিন পদার্থ বিজ্ঞানী আর্থার অ্যাশকিন, ফরাসী পদার্থবিজ্ঞানী জিরার্ড ম্যুরো ও কানাডার নারী পদার্থবিজ্ঞানী ডন্না স্ট্রিকল্যান্ড।
মঙ্গলবার রয়্যাল সুইডিশ একাডেমি সুইডেনের স্থানীয় সময় দুপুর পৌনে ১২টায় এ তিন বিজ্ঞানীর নোবেল জয়ের ঘোষণা দিয়েছে।
টুইটারে নোবেল কমিটির দেওয়া বিবৃতিতে বলা হয়েছে, অত্যন্ত সরু লেজার রশ্মি নির্ভুলভাবে বিভিন্ন পদার্থ এমনকি জীবন্ত প্রাণীর দেহ কাটতে অথবা ছিদ্র করতে পারে। প্রতিবছর লাখ লাখ চোখের অপারেশন হয় সরু লেজার রশ্মি দিয়ে।
এতে আরো বলা হয়েছে, যুক্তরাষ্ট্রের নাগরিক আর্থার অ্যাশকিন আবিস্কার করেছেন অপটিক্যাল চিমটা যার মাধ্যমে কণা, পরমাণু, ভাইরাস ও অন্যান্য জীবিত কোষ লেজার রশ্মি দিয়ে ধরা যায়। নতুন এই যন্ত্রটির মাধ্যমে অ্যাশকিন সায়েন্স ফিকশনের একটি পুরোনো স্বপ্ন বাস্তবে নিয়ে আসেন- আলোর বিকিরণ চাপ ব্যবহার করে বস্তুকে অপসারণ। তিনি লেজার রশ্মি ব্যবহার করে কণাকে আলোকরশ্মির কেন্দ্রে নিয়ে আসতে এবং তাদের সেখানে ধরে রাখতে সক্ষম হন।
ফরাসি নাগরিক জিরার্ড ম্যুরো এবং কানাডার ডন্না স্ট্রিকল্যান্ড মানব জাতির ইতিহাসে সবেচেয়ে ক্ষুদ্র ও সবচেয়ে তীব্র লেজার অনুরণন সৃষ্টির পথ প্রশস্ত করেন। তাদের লেখা যুগান্তকারী নিবন্ধটি প্রকাশ হয়েছিল ১৯৮৫ সালে।

শেয়ার করুন

0 comments:

পাঠকের মতামতের জন্য কানাইঘাট নিউজ কর্তৃপক্ষ দায়ী নয়

নোটিশ :   কানাইঘাট নিউজ ডটকমে প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, আলোকচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও বিনা অনুমতিতে ব্যবহার করা বেআইনি -সম্পাদক